What is Bank CSP (Customer Service Point ) | How to Get Bank CSP | SBI গ্রাহক পরিষেবা কেন্দ্র - Bangla SMS Point- বাংলা-SMS-পয়েন্ট

Latest

Thursday, August 20, 2020

What is Bank CSP (Customer Service Point ) | How to Get Bank CSP | SBI গ্রাহক পরিষেবা কেন্দ্র

 What is Bank CSP (Customer Service Point ) | How to Get Bank CSP | SBI গ্রাহক পরিষেবা কেন্দ্র

What is bank csp | bank csp provider|csp registration | bank mitra csp|csp apply | csp provider company list | csp registration fee | sbi csp salary | sbi csp list 2020


ডিজিটাল ইন্ডিয়া তৈরী করার উদ্দেশে সমস্ত প্রকার কর্পোরেট এবং গভরমেন্টে সেক্টরের কাজকর্ম অনলাইন এর মাধ্যমে দেশবাসীর কাছে পৌঁছে দেওয়ার যে প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে সেগুলির মধ্যে ইন্ডিয়ান ব্যাঙ্কিং সার্ভিস অন্যতম। 

What is Bank CSP (Customer Service Point )
What is Bank CSP (Customer Service Point )

2007 সালে Eko India Financial Services নামে একটি কোম্পানি RBI এর সম্মতিক্রমে ভারতের সমস্ত বড়ো বড়ো ব্যাংক গুলির শাখা ব্যাঙ্ক বা CSP খোলার নির্দেশ দেয়।



এর ফলে, নরমাল ব্যাঙ্কিং সার্ভিস গুলি CSP দের দ্বারা করানো এবং বাকি সমস্ত প্রধান কাজগুলি Main Branch এ করার মাধ্যমে একদিকে যেমন জনসাধারণের সুবিধা হয় তেমনি অপরপক্ষে অনেক বেকার মানুষদের কর্মসংস্থান ও করে দেয়। 


সিএসপি কী?

সিএসপি এর অর্থ (Customer Service Point ) বা "গ্রাহক পরিষেবা কেন্দ্র", যাকে ব্যাংক মিত্রও বলা হয়। ব্যাংক মিত্র হ'ল PPP (পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপ) এর আওতায় তৈরি একটি ধারণা যেখানে কোনও ব্যাংকমিত্র বা CSP ব্যাংকের প্রতিনিধি বা এজেন্ট হিসাবে কাজ করে। 


এবং নাগরিকদের ব্যাংকিং পরিষেবা দেওয়ার জন্য নিযুক্ত হয়। এরা যেই ব্যাংকিং পরিষেবাগুলি দিয়ে থাকে তার মধ্যে অ্যাকাউন্ট খোলা, টাকা জমা দেওয়া এবং টাকা প্রত্যাহার করা ইত্যাদি অন্যতম। 


সিএসপির দায়িত্ব কী কী?

"প্রধানমন্ত্রীর জন ধন যোজনা" এর মতো বিভিন্ন সরকারী প্রকল্প এবং নীতিমালার আওতায় নাগরিকদের সঞ্চয়ী ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলতে সহায়তা করা। টাকা জমা দেওয়া এবং প্রত্যাহারের গ্রহণযোগ্যতা প্রদান করা। 


সিএসপি হওয়ার সুবিধা কী কী?

এটি ব্যাংক কমিশন হিসাবে ব্যাংকগুলির সাথে কাজ করার একটি সুযোগ যেটা ব্যাংকিং পরিষেবাগুলি সরবরাহ করার মাধ্যমে আপনাকে কিছু কমিশন প্রদান করে। 



ব্যাংক মিত্র হিসাবে আপনি অ্যাকাউন্ট খোলার, নগদ আমানত জমা , নগদ আমানত উত্তোলন, ক্রেডিট কার্ডের অর্থ প্রদান, বিল প্রদানসমূহ,সহ সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ণ কাজগুলির একটা ফিক্স বেতন দিয়ে থাকে। 


সিএসপি এজেন্টদের নির্দিষ্ট শর্তে প্রতি মাসে ২০০০ থেকে ৫০০০ টাকা প্রদান করা হচ্ছে।


কিভাবে CSP (Customer Service Point) নিবেন ? 

প্রথমেই আপনারা একটা কথা ভালো ভাবে বোঝার চেষ্টা করবেন যে,, এই যে CSP center গুলো রয়েছে এগুলি ব্যাঙ্ক ডিরেক্টলি কাস্টমার দের প্রদান করে না। যতগুলো ব্যাঙ্ক csp রয়েছে সেগুলি কোনো না কোনো কোম্পানির আওতায় রয়েছে। 


তো আপনাকে ব্যাঙ্ক csp নেওয়ার জন্য সেই সমস্ত কোম্পানি গুলির সাথে কন্টাক্ট করতে হবে। নিচে কয়েকটি কোম্পানির নাম দিয়ে দিলাম। 


এবং এর পাশাপাশি আপনি আপনার কাছের ব্যাঙ্ক ব্রাঞ্চের ম্যানেজার এর সাথে যোগাযোগ করতে পারেন এবং তাকে বলতে পারেন যে - আমি যেই লোকেশন এ থাকি তার 2 কিলোমিটার এর মধ্যে কোনো ব্যাঙ্ক CSP নেই। এবং সেই এলাকাটা অনেক বড়ো রয়েছে, তো আমাকে একটা ব্যাঙ্ক CSP প্রদান করেন। 



তো ব্যাঙ্ক ম্যানেজার আপনাকে এই কথাটা বলতে পারে যে - এখন ব্যাঙ্ক কোনো csp বা গ্রাহক সেবা প্রদান করে না। আপনি কোনো কোম্পানির সাথে যোগাযোগ করেন। 


এরপর আপনি যেই সমস্ত কোম্পানি গুলি গ্রাহক সেবা প্রদান করে তাদের সাথে কন্টাক্ট করবেন। 


এরপর আপনার লোকেশন টা ভেরিফাই হবে। যদি সব ঠিক ঠাক থাকে তাহলে হয়তো আপনি ব্যাঙ্ক CSP পেয়ে যেতে পারেন। 


Trusted Bank CSP Provider Company





👉সিএসপি খোলার ও রক্ষণাবেক্ষণের জন্য যোগ্যতা:


বয়স মিনিমাম ২১ বছর হতে হবে। 

কম্পিউটারের সাধারণ জ্ঞান থাকতে হবে। 

কিছু টাকা ইনভেস্ট করতে হবে  (২৫০০০)

রেস্পন্সিবল হতে হবে। 

কর্মঠ (LABOURIOUS) হতে হবে।  

বেরোজগার হতে হবে। 

 

What is Bank CSP (Customer Service Point )
What is Bank CSP (Customer Service Point )



👉CSP খোলার জন্য কি কি প্রয়োজন হবে:- 


250 থেকে 300 বর্গফুট এর একটা আউটলেট থাকতে হবে। 

এবং সেখানে একটি কাউন্টার থাকতে হবে। 

একটি ল্যাপটপ বা ডেস্কটপ থাকতে হবে। 

ইন্টারনেট সংযোগ (ব্রডব্যান্ড / ডংল) থাকতে হবে।

বিদ্যুতের ব্যাকআপ থাকতে হবে।

একটি ওয়েব ক্যামেরা বা একটি স্ক্যানার থাকতে হবে।

একটি প্রিন্টার থাকতে হবে।


👉কি কি ডকুমেন্টস এর প্রয়োজন হবে?


এপ্লিকেশন ফর্ম। 

2টি পাসপোর্ট সাইজের ছবি

প্যান কার্ড (বাধ্যতামূলক)

আইডি প্রুফ (ভোটার আইডি / ড্রাইভিং লাইসেন্স / পাসপোর্ট ইত্যাদি)

দোকান এর প্রমাণ

আবাসিক ঠিকানার প্রমাণ (বিদ্যুতের বিল, রেশন কার্ড ইত্যাদি)



👉অ্যাপ্লিকেশন - অ্যাক্টিভেশন এর প্রক্রিয়া:-


আবেদন ফর্ম এবং নিবন্ধন ফি টীম গ্রহণ করবে। 

এসবিআই স্থানীয় শাখায় ফাইল পাঠানো হবে। 

তারপর ব্যাঙ্ক সিএসপি কোড প্রদান করবে। 

এরপর আপনার দোকান ভেরিফিকেশন করা হবে ও টার্মিনাল ম্যাপিং করা হবে। 

তারপর ওয়েলকাম কিট এবং ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার প্রেরণ করা হবে। 

কিট প্রাপ্তির পরে সফটয়ার প্রদান করা হবে এবং ট্রেনিং দেওয়া হবে। 


সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া হতে সাধারণত 25-30 দিন সময় এর প্রয়োজন হবে। 


Contact Me

এছাড়াও, আপনি আমার সাথে কন্টাক্ট করতে পারেন। আমি আপনাকে ফুল সাপোর্ট করবো একটি ব্যাঙ্ক গ্রাহক পরিষেবা খুলতে। 


এই নম্বর গুলিতে যোগাযোগ করতে পারেন - 9734781984 / 8617418279

No comments:

Post a Comment